বকেয়া বেতনের দাবীতে ফরিদপুর এনপিআইতে শিক্ষক-কর্মচারীদের আন্দোলন





প্রতিবেদক, টাইমসবাংলা.নেটঃ
করোনা ভাইরাসের প্রভাব শুরু হওয়ার প্রথম থেকেই দেশে বন্ধ রয়েছে শিক্ষা প্রতিষ্টান। আর এর যের ধরে ন্যাশনাল পলিটেকনিক ইন্সিটিউট ফরিদপুর শাখা তাদের তাদের শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতন ভাতা বন্ধ করে দিয়েছেন।

বকেয়া বেতনের দাবীতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ মিছিল করছে ইনষ্টিটিউট টির ফরিদপুর শাখার শিক্ষক কর্মচারী বৃন্দ। মঙ্গলবার দুপুরে শহরের কমলাপুর চানমারী কলেজ ক্যাম্পাসের সামনের সড়কে ঘন্টা ব্যাপী মানববন্দনে বেতনের দাবীতে বক্তব্য রাখেন ন্যাশনাল পলিটেকনিক ইনষ্টিটিউট ফরিদপুর শাখার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ বলরাম চন্দ্র দে, গনিত শিক্ষক কানিজ ফাতেমা, কম্পিউটার শিক্ষক রফিকুল ইসলাম ও প্রশাসনিক কর্মকর্তা মো. লুৎফর রহমান।

এসময় কলেজের ফরিদপুর শাখার ৩৬জন শিক্ষক ও কর্মচারী কর্মসুচিতে অংশ নেয়। এসময় কয়েক জন শিক্ষক কান্না জড়িত কন্ঠে বলেন, আমরা এই কলেজ থেকে সামন্য বেতন পাই,সরকারী স্কেল অনুযায়ী আমাদের বেতন দেওয়া হয় না । যে বেতন পাই তা দিয়ে আমাদের সংসার চলে না। বর্তমানে আমাদের ৩ মাসের বেতন বাকী রয়েছে, আমরা পরিবার পরিজন নিয়ে এই করোনার মধ্যে মানবেতর জীবন জাপন করছি। তারা আরো জানান, কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করলে তারা আমাদের সাফ জানিয়ে দিয়েছে সেপ্টেম্বর প্রযন্ত কোন বেতন পরিশোধ করা সম্ভব না। এই অবস্থায় আমরা মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার সহযোগীতা কামনা করছি।

অপরদিকে প্রতিষ্টানের স্থানীয় ৪ জন পরিচালকের একজন মো. সিদ্দিকুর রহমান জানান, শিক্ষা প্রতিষ্টান বন্ধ বিধায় শিক্ষক-কর্মচারীদের বেতন বোনাস দেয়া সম্ভব হচ্ছে না। এফডিআর ভাঙ্গানো সম্ভব হলে এপ্রিল মাসের অর্ধেক বেতন দেয়া হবে বলেও জানান তিনি। একই সাথে সেপ্টেম্বরে প্রতিষ্ঠান খুললে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। এত বছরের পুরানো ও জনপ্রিয় একটা প্রতিষ্টানে এই মহামারীতে বেতন বোনাস বন্ধ করে দিলে শিক্ষক কর্মচারীরা চলবে কি করে এমন প্রশ্ন করলে তিনি ঢাকা অফিসে কথা বলার পরামর্শ দেন এই প্রতিবেদককে। #



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

গনমাধ্যম

স্বাস্থ্য

বিশেষ সংবাদ

কৃষি ও খাদ্য

আইন ও অপরাধ

ঘোষনাঃ