বিয়ের দাবিতে অনশন করা সেই তরুণীকে অপহরণের অভিযোগ





টাইমসবাংলা.নেটঃ
ঠাকুরগাঁওয়ে সদর উপজেলা রুহিয়া কানিকশালগাঁয়ে বিয়ের দাবিতে প্রেমিক সাজেদুল ইসলাম সজলের বাড়িতে অনশনের ১৯ দিন পর সেই তরুণীকে অপহরণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

রবিবার সন্ধ্যার পর থেকে ওই তরুণীকে কোথাও খুঁজে পাওয়া যাচ্ছেনা বলে জানা গেছে।

অভিযুক্ত প্রেমিক সাজেদুল ইসলাম সজল ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলা রুহিয়া কানিকশালগাঁয়ের হামিদুল ইসলামের ছেলে। এছাড়া সজল রুহিয়া ২০নং ইউনিয়নের ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ছিলেন।

তরুণীর বড় ভাই বিপ্লব জানান, বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে সজল দুই বছর যাবত প্রেম ও জোড়পূর্বক একাধিকবার শারিরিক সম্পর্ক করার পরেও বিয়ে না করায় ওই তরুণী ২৬ জুন সদর উপজেলা রুহিয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করে । সে মামলায় সজল হাইকোর্ট থেকে জামিনে আসলে গত ২৮ আগস্ট থেকে ওই তরুণী বিয়ের দাবিতে সজলের বাড়িতে অবস্থান নেয় এবং অনশন শুরু করে। গতকাল রবিবার সারাদিন ওই তরুণীকে সজলের বাড়িতে দেখা গেলেও সন্ধ্যার পর তাকে আর দেখা যায়নি।

তরুণীর বাবা সামসুল হক জানান, প্রতিবেশিদের কাছে তার মেয়ের নিখোঁজের খবর শুনতে পেয়ে তিনি সজলের বাড়িতে ও আত্মীয় স্বজনের বাড়িতে খোঁজ নেন। কিন্তু কোথাও তাকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছেনা।

অপহরণের বিষয়ে সজলের বাড়িতে গিয়ে তাকে পাওয়া যায়নি। স্থানীয়রা জানায়, তরুণী সজলের বাড়িতে অবস্থান নেয়ার পর থেকে সজল আত্মগোপনে রয়েছে। আর সজলের পরিবারের কেউ এবিষয়ে কোন কথা বলতে রাজি হয়নি।



মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

গনমাধ্যম

স্বাস্থ্য

বিশেষ সংবাদ

কৃষি ও খাদ্য

আইন ও অপরাধ

ঘোষনাঃ